বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০২৪, ০৯:২৮ অপরাহ্ন

ইউক্রেন ছেড়েছে ১০ লাখ মানুষ: জাতিসংঘ

ডেস্ক রিপোর্ট জাতিসংঘ বলেছে, ইউক্রেনে রাশিয়ার হামলা শুরুর পর থেকে ১০ লাখের মতো মানুষ দেশটি ছেড়ে প্রতিবেশী দেশগুলোতে আশ্রয় নিয়েছে। এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানায় সংস্থাটি।

বৃহস্পতিবার (৩ মার্চ) বিবিসি এ তথ্য জানায়।

বিবিসি জানায়, রাশিয়ার কর্মকর্তারা বলছেন, ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভ শহরের বাসিন্দাদের সেখান থেকে সরে যাওয়ার সময় রাশিয়ার সৈন্যরা কোনো প্রতিবন্ধকতা তৈরি করবে না।

৪০ মাইল দীর্ঘ রাশিয়ার একটি সামরিক বহর এখন কিয়েভ শহর থেকে ২০ মাইল দূরে রয়েছে। রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের একজন মুখপাত্র জানিয়েছেন, কিয়েভ শহর থেকে বাসিন্দারা যাতে বের হতে পারে সে সুযোগ দেওয়া হবে

‘বেসামরিক নাগরিকরা শহর ছেড়ে যাবার সময় রাশিয়ার সৈন্যরা কোনো প্রতিবন্ধকতা তৈরি করবে না,’ বলেন মেজর জেনারেল কোনাসনেকভ। তার এই বার্তা রাশিয়ার একটি টিভি চ্যানেলে দেখানো হচ্ছে।

এর আগে ২০১৫ সালে ইউরোপে শরণার্থী সংকটে পড়েছিল ১৩ লাখ মানুষ। সে সময় যুদ্ধবিধ্বস্ত সিরিয়া ছাড়াও আফগানিস্তান, নাইজেরিয়া, পাকিস্তান, ইরাক, ইরিত্রিয়াসহ অন্যান্য দেশ থেকে বিপুল মানুষ ইউরোপে আশ্রয়ের জন্য আবেদন করেছিল। কিন্তু, ইউক্রেনে রাশিয়ার সেনা অভিযানের পর শরণার্থী সংকটে পড়া ভুক্তভোগীর সংখ্যা মাত্র এক সপ্তাহেই এর কাছাকাছি চলে এসেছে।

জাতিসংঘের পক্ষ থেকে ধারণা করা হচ্ছে—ইউক্রেন পরিস্থিতিতে এক কোটি ২০ লাখ মানুষ বাস্তুচ্যুত হতে পারে এবং এ জন্য ত্রাণের প্রয়োজন হবে।

এদিকে, ইউক্রেনে রাশিয়ার আগ্রাসনের বিরুদ্ধে জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদে নিন্দা প্রস্তাব গৃহীত হয়েছে। খবর ভয়েস অব আমেরিকার।

জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদ স্থানীয় সময় বুধবার ইউক্রেনে রুশ হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছে এবং রাশিয়ার সেনাদের অবিলম্বে সম্পূর্ণ প্রত্যাহার করার আহ্বান জানিয়েছে।

এই নিউজটি আপনার ফেসবুকে শেয়ার করুন

© shaistaganjerbani.com | All rights reserved.