শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১০:২৬ অপরাহ্ন

খবরের শিরোনাম:
ফেব্রুয়ারির পরিবর্তে ডিসেম্বরে এসএসসি পরীক্ষা থাইল্যান্ডে আন্তর্জাতিক যুব সম্মেলনে যাচ্ছেন যুব নেতা হোসাইন জীবিতদের মৃত দেখিয়ে ভাতা থেকে বাদ দিলেন চেয়ারম্যান অবৈধভাবে ব্যালটে সিল মারার অভিযোগে, প্রিজাইডিং অফিসারসহ গ্রেফতার ০২ নবীগঞ্জের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের অভিযানে ইয়াবা ও গাঁজাসহ ২ জন গ্রেপ্তার। আজ বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের প্রধান ধর্মীয় উৎসব বুদ্ধ পূর্ণিমা আজমিরীগঞ্জে ৩৯ লিটার চোলাই মদসহ বিক্রেতা সুনিল গ্রেফতার কলকাতার একটি হোটেল পড়ে ছিলো এমপি আনারের লাশ বাহুবল উপজেলা আনেয়ার হোসেন চেয়ারম্যান নির্বাচিত কামরুল ইসলাম ও রিতা ভাইস চেয়ারম্যান নবীগঞ্জে আওয়ামিলীগের হেভিওয়েটদের হারিয়ে বিজয়ী বিএনপির মুজিবুর রহমান

ওমিক্রনের প্রভাবে ৬ হাজার ফ্লাইট বাতিল

ডেস্ক রিপোর্ট বড়দিনের সময়ে সারা বিশ্বে প্রতিবারের মতো আকাশপথে ভ্রমণপিপাসু মানুষের ভিড় বেড়েছে। তবে আবারও গত বছরের মতো বাধ সাধল করোনা। এবারের ওমিক্রনের প্রভাবে বড়দিনের আগে পরে এখন পর্যন্ত ৬ হাজার ৩০০টি ফ্লাইট বাতিল হয়েছে বলে জানিয়েছে ফ্লাইটএওয়ার ডাটাট্রাকিং ওয়েবসাইট।

গতকাল শনিবার (২৫ ডিসেম্বর) বড়দিনের দিনেই ২ হাজার ৮০০টি ফ্লাইট বাতিল হয়েছে বলে জানিয়েছে সংশ্লিষ্ট ট্রাকিং ওয়েবসাইটটি। বাতিলকৃত ফ্লাইটের মধ্যে সিংহভাগই যুক্তরাষ্ট্র এবং চীনের এয়ারলাইন্স বলে জানা গেছে।

এছাড়াও বড়দিনে ফ্লাইট বাতিলের পাশাপাশি বিমান ছাড়তে বিলম্ব করেছে ৮ হাজারটি ফ্লাইট। শুক্রবার (২৪ ডিসেম্বর) ফ্লাইট বাতিলের সংখ্যা ছিল ২ হাজার ৪০০টি এবং বিলম্ব হয়েছে ১১ হাজারটি।

রোববার (২৬ ডিসেম্বর) ইতোমধ্যে ১ হাজার ১০০টি ফ্লাইট বাতিল হয়েছে বলে জানিয়েছে ফ্লাইটএওয়ার ডাটাট্রাকিং ওয়েবসাইট।

ফ্লাইট বাতিলের কারণ হিসেবে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছে, ওমিক্রনের প্রভাবে অনেক বিমানেরই পাইলট, কেবিন ক্রু এবং স্টাফরা অসুস্থ হয়ে পড়েছে। অনেকে আবার কোয়ারেন্টাইনে রয়েছে। এতে করে বিমান পরিচালনায় দেখা দিয়েছে পর্যাপ্ত লোকবলের ঘাটতি।

ট্রাকিং ওয়েবসাইট থেকে জানা যায়, ডেল্টা, ইউনাইটেড এয়ারলাইন্স, জেট-ব্লু এবং আলাস্কা এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট সবথেকে বেশি বাতিল হয়েছে।

এ ব্যাপারে ইউনাইডেট এয়ারলাইন্সের মুখপাত্র মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল-জাজিরাকে দেওয়া একটি সাক্ষাতকারে বলেছেন, ‘চারদিকে ওমিক্রন ছড়িয়ে পড়ায় আমাদের বেশিরভাগ কর্মীই আক্রান্ত হয়েছে। এতে করে লোকবলের অভাবে আমরা ফ্লাইট পরিচালনা করতে পারছি না।’

অন্যদিকে শনিবার ডেল্টা এয়ারলাইন্স তাদের বাতিল হওয়া ৩১০টি ফ্লাইট সম্পর্কে জানিয়েছে যে, ওমিক্রনের প্রভাবে ফ্লাইট পরিচালনার প্রতিটি ক্ষেত্রে যারপরনাই বিশৃঙ্খলা দেখা দিয়েছে। ডেল্টা কর্তৃপক্ষ যাত্রীদের কাছে এমন অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনার জন্য দুঃখ প্রকাশ করেছে।

এদিকে গণহারে ফ্লাইট বাতিল হওয়ায় যাত্রীদের মধ্যে হতাশা দেখা দিয়েছে। যাত্রীদের মধ্যে অনেকেই গত বছর করোনার কারণে পরিবারের সাথে বড়দিন কাটাতে পারেনি। এবছরও এমন বিশৃঙ্খল অবস্থা সৃষ্টি হওয়ায় যাত্রীরা হতাশায় ভুগছেন বলে জানিয়েছে আল-জাজিরা।

এই নিউজটি আপনার ফেসবুকে শেয়ার করুন

© shaistaganjerbani.com | All rights reserved.