রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৫:৩৩ পূর্বাহ্ন

‘মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি সারাজীবন কৃতজ্ঞ থাকতে হবে’

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ বলেছেন, ‘অকৃতজ্ঞ জাতি সামনে এগিয়ে যেতে পারে না। জাতিকে মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি সারাজীবন কৃতজ্ঞ থাকতে হবে। মুক্তিযোদ্ধাদের রক্তের বিনিময়ে আমরা একটি স্বাধীন দেশ পেয়েছি। তাই তাদের জন্য কিছু করে দেখাতে হবে। কিছু না পারলেও প্রতি বছর যদি মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানে একটি গাছও লাগাই তাহলেও দেশ স্বর্গ হয়ে যাবে।’

শনিবার সিলেট স্টেশন ক্লাব আয়োজিত স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উৎসবের দুই দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের সমাপনী দিনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

এ সময় তিনি বলেন, ‘এই অনুষ্ঠানে আমাদের মুক্তিযোদ্ধারা অনেক ইতিহাস শুনিয়েছেন। এই ইতিহাসগুলো যদি স্কুলে স্কুলে গিয়ে শিক্ষার্থীদের শুনানোর ব্যবস্থা করা যেত। অথবা লেখার মাধ্যমে নতুন প্রজন্মের কাছে পৌঁছে দেওয়া যায় তাহলে নতুন প্রজন্ম প্রকৃত ইতিহাস জানতে পারবে। কারণ আমাদের ইতিহাসকে বার বার বিকৃত করা হয়েছে। একটি জাতির ইতিহাস যদি বিকৃত হয়ে যায় সেই জাতি বেশিদূর এগিয়ে যেতে পারে না।’

সিলেট স্টেশন ক্লাবের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা সদর উদ্দিন আহমদ চৌধুরীর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আলোচক হিসেবে বক্তব্য দেন বীর মুক্তিযোদ্ধা ছাদ উদ্দিন আহমদ, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ শওকত আলী, বীর মুক্তিযোদ্ধা মাসুক উদ্দিন আহমদ এবং বীর মুক্তিযোদ্ধা মুজিবুর রহমান চৌধুরী।

দুইদিনব্যাপী এই উৎসবের গতকাল শনিবার ছিল সমাপনী দিন। এদিন সন্ধ্যা ৬টায় আলোচনা সভার মাধ্যমে অনুষ্ঠান শুরু হয়। এ সময় প্রধান অতিথিসহ আলোচকদের ফুল, ক্রেস্ট ও উত্তরীয় দিয়ে সম্মাননা প্রদান করে সিলেট স্টেশন ক্লাব। আলোচনা শুরু আগে ভারত থেকে আগত শিল্পী শবার্ণী বাউলকে ক্রেস্ট প্রদান করে প্রধান অতিথি। পরে বাউল শিল্পী শর্বাণী বাউল ও গৌতম চক্রবর্তীর গানের মোড়ক উন্মোচন করা হয়।

আলোচনা সভায় বীর মুক্তিযোদ্ধারা মুক্তিযুদ্ধকালীন বিভিন্ন ঘটনা তুলে ধরেন। এ সময় বীর মুক্তিযোদ্ধা সাদ উদ্দিন আহমদ দুইজন নতুন প্রজন্মের হাতে জাতীয় পতাকা তুলে দেন। আলোচনা সভায় স্বাগত বক্তব্য দেন সিলেট স্টেশন ক্লাব আয়োজিত স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উৎসবের আহ্বায়ক আবু বক্কর হীরন। পুরো অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করে নন্দিতা দত্ত ও নাজমা পারভীন।

সভায় সভাপতির বক্তব্যে সিলেট স্টেশন ক্লাবের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা সদর উদ্দিন আহমদ চৌধুরী বলেন, ‘দীর্ঘ লড়াই সংগ্রামের মাধ্যমে আমরা কাঙ্ক্ষিত স্বাধীনতা লাভ করেছি। ৩০ লাখ মানুষের জীবন ও দুই লাখ মা বোনের সম্ভ্রমের মাধ্যমে আমরা বিজয় লাভ করেছি। যার সুবর্ণজয়ন্তী আজ আমরা পালন করছি। মুক্তিযোদ্ধাদের আত্মত্যাগকে ধারণ করে নতুন প্রজন্মকে এগিয়ে যেতে হবে। তাহলেই সোনার বাংলাদেশ গড়ে তোলা যাবে।’ এ সময় দুইদিনব্যাপী অনুষ্ঠান সফল করতে যারা শ্রম দিয়েছেন তাদের সবাইকে শুভেচ্ছা জানান তিনি।

এদিকে আলোচনা সভা শেষে অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে শুরু হয় সাংস্কৃতিক পরিবেশনা। এতে আবৃত্তি ‘স্বাধীনতা তুমি’ পরিবেশন করে দ্বৈতসর সিলেট, লোকগান ও বাউল গান পরিবেশন করেন ভারত থেকে আগত শিল্পী শর্বাণী বাউল, নৃত্যনাট্য ‘দ্রোহকাল’ পরিবেশন করে নৃত্যশৈলী সিলেট এবং বাউল গান পরিবেশন করেন বাউল শিল্পী আব্দুর রহমান।

এই নিউজটি আপনার ফেসবুকে শেয়ার করুন

© shaistaganjerbani.com | All rights reserved.