সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৬:২৪ অপরাহ্ন

সিলেটে বিএনপির মিছিল ও সমাবেশ

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ হবিগঞ্জে বিএনপির মিছিলে ‘হামলা’র প্রতিবাদে ও দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি এবং বিদেশে গিয়ে চিকিৎসার সুযোগ প্রদানের দাবিতে সিলেটে মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। সিলেট জেলা বিএনপির উদ্যোগে এই মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

আজ শনিবার (২৫ ডিসেম্বর দুপুরে নগরের কোর্ট পয়েন্ট থেকে মিছিল শুরু হয়ে নগরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে সিলেট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সামনে এসে শেষ হয়। মিছিল শেষে সংক্ষিপ্ত সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এতে সিলেট জেলা বিএনপি ও এর অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা অংশ নেন।

মিছিল শেষে অনুষ্ঠিত সমাবেশে বক্তব্য সভাপতিত্ব করেন সিলেট জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কামরুল হুদা জায়গীরদার।

সভায় সভাপতির বক্তব্যে কামলুল হুদা জায়গীরদার বলেন, ‘বিএনপি চেয়ারপারসন ও তিনবারের প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার সুচিকিৎসা নিশ্চিতে দ্রুত বিদেশ পাঠাতে হবে।’ তিনি বলেন, ‘হবিগঞ্জ বিএনপি আয়োজিত শান্তিপূর্ণ সমাবেশে হামলা ও নির্বিচারে গুলি বর্ষণ আওয়ামী ফ্যাসিবাদের নগ্ন বহিঃপ্রকাশ।’ সরকার দেশে একদলীয় বাকশাল কায়েম করতে সরকারি বাহিনীকে দলীয় লাঠিয়াল বাহিনী হিসেবে ব্যবহার করছে অভিযোগ করে এসময় তিনি বলেন, ‘হবিগঞ্জের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কতিপয় অতিউৎসাহী কর্মকর্তা কোনো কারণ ছাড়াই বিএনপির দলীয় নেতাকর্মীদের গুলীবর্ষণ করেই ক্ষান্ত হননি। আহত নেতাকর্মীদের অন্যায়ভাবে গ্রেপ্তার ও হাজার হাজার নেতাকর্মীকে আসামি করে ষড়যন্ত্রমূলক মামলা দায়ের করেছেন।‘ এর মাধ্যমে তারা দেশের রাজনৈতিক ময়দানকে উত্তপ্ত করে বিরোধী নেতাকর্মীদের উপর হামলা মামলা ও নির্যাতনের পথ প্রশস্ত করছেন জানিয়ে তিনি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, ‘এর পরিণতি কারও জন্য মঙ্গলজনক হবে না। সকল জুলুম নিপীড়নের বিচার বাংলার মাঠিতে হবেই।’

বিএনপির মিছিল ও সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও জেলা আহ্বায়ক কমিটির ১নং সদস্য আবুল কাহের চৌধুরী শামীম, আহ্বায়ক কমিটির সদস্য আব্দুল কাইয়ুম চৌধুরী, অধ্যাপিকা সামিয়া বেগম চৌধুরী, ফখরুল ইসলাম ফারুক, মাহবুবুর রব চৌধুরী ফয়সল, এডভেকেট হাসান আহমদ পাটোয়ারী রিপন, আব্দুল আহাদ খান জামাল, মাহবুবুল হক চৌধুরী, আবুল কাশেম, শামীম আহমদ, সদর উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক এ কে এম তারেক কালাম, বিএনপি নেতা শহীদ আহমদ চেয়ারম্যান, কামরুল হাসান চৌধুরী শাহীন, জেলা সাবেক স্বাস্থ্য সম্পাদক আ ফ ম কামাল, সাবেক সহ কোষাধ্যক্ষ জাকির হোসেন, সাবেক সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক হাবিবুর রহমান হাবিব, সাবেক সহ-দফতর সম্পাদক আব্দুল মালেক, সাবেক সহ আইন বিষয়ক সম্পাদক ও জেলা যুবদলের ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক এডভোকেট মুমিনুল ইসলাম মুমিন, সাবেক সহ-ত্রাণ বিষয়ক সম্পাদক আব্দুল লতিফ খান, সাবেক সহ ক্ষুদ্র ঋণ বিষয়ক সম্পাদক এনামুল হক মাক্কু, সাবেক সদস্য শফিকুর রহমান টুটুল, আজাদ মেম্বার, কামরুজ্জামান দীপু, রফিকুল ইসলাম, জেলা যুবদলের সদস্য সচিব মকসুদ আহমদ, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য সচিব দেওয়ান জাকির হোসেন খান, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি আলতাফ হোসেন সুমন ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন নাদিম প্রমুখ।

এই নিউজটি আপনার ফেসবুকে শেয়ার করুন

© shaistaganjerbani.com | All rights reserved.